জীবনধারা

অসাধারন স্বাদে দই বেগুন রেসিপি

দই বেগুন

মাংস খেতে খেতে স্বাদে একঘেয়েমি চলে এসেছে নিশ্চয়? স্বাদে পরিবর্তন নিয়ে আসতে এবার সবজি রাখতে পারেন খাবার মেন্যুতে। বেগুন খেতে যারা পছন্দ করেন তারা মজাদার দই বেগুন রান্না করে ফেলতে পারেন।  পোলাও, বিরিয়ানি, লুচি, পরোটা কিংবা রুটির সঙ্গে খেতে পারবেন আইটেমটি।

উপকরণ

  • বেগুন- ৩টি (ছোট সাইজের)
  • সয়াবিন তেল- প্রয়োজন মতো
  • সরিষার তেল- ২ টেবিল চামচ
  • পেঁয়াজ কুচি- আধা কাপ
  • পেঁয়াজ বাটা- আধা কাপ
  • টমেটোর পেস্ট- ১/৩ কাপ
  • আদা-রসুন বাটা- ১ চা চামচ
  • মরিচের গুঁড়া- আধা টেবিল চামচ
  • ধনিয়ার গুঁড়া- ১ চা চামচ
  • জিরার গুঁড়া- ১ চা চামচ
  • হলুদের গুঁড়া- সামান্য
  • গরম মসলার গুঁড়া- সামান্য
  • লবণ- স্বাদ মতো
  • টক দই- ১/৩ কাপ
  • চিনি- আধা টেবিল চামচ
  • বাদাম বাটা- ২ টেবিল চামচ
  • আস্ত কাঁচামরিচ- কয়েকটি

প্রস্তুত প্রণালি

ছুরির সাহায্যে বেগুন মাঝখান দিয়ে চিরে নিন। পুরোটা চিরে ফেলার দরকার নেই, আগার দিকে খানিকটা অংশ যেন আটকে থাকে। বেগুনের নিচের অংশ মোটা হলে দুই ভাগের বদলে চার ভাগ করে নিন। তবে এবার একদম আগা পর্যন্ত কাটবেন না। চাইলে গোল, লম্বা কিংবা চাকা করেও কাটতে পারেন।

উপরে থাকা বেগুনের পাতা ফেলে দেবেন আগেই। সামান্য হলুদ, মরিচ, ভাজা জিরার গুঁড়া, লবণ ও ১ চামচ তেল দিয়ে বেগুন ম্যারিনেট করে রাখুন। বেগুনের ভেতরের অংশে যেন মসলা ভালো মতো লাগে সেদিকে লক্ষ রাখবেন।

চুলায় প্যান বসিয়ে ১/৩ কাপ সয়াবিন তেল ও ২ টেবিল চামচ সরিষার তেল দিন। তেল গরম হয়ে গেলে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে দিন। মিডিয়াম হাই হিটে পেঁয়াজ সোনালি করে ভাজুন। পেঁয়াজ বাটা। আদা-রসুন বাটা ও পাকা টমেটোর পেস্ট দিয়ে নেড়ে নিন। হলুদের গুঁড়া, মরিচের গুঁড়া, ধনিয়ার গুঁড়া, লবণ ও জিরার গুঁড়া দিয়ে ২ মিনিট কষিয়ে নিন।

এবার ম্যারিনেট করে রাখা বেগুন দিয়ে দিন মসলায়। খুন্তি দিয়ে মসলা বেগুনের উপরে দিয়ে প্যান ঢেকে দিন। মিডিয়াম লো আঁচে রেখে দিন ১০ মিনিট। বেগুনগুলো নেড়ে উল্টে দিন। আশপাশ থেকে মসলা উঠিয়ে বেগুন মেখে আরও ১০ মিনিটের জন্য ঢেকে দিন প্যান। সামান্য পানি দিয়ে দিন যেন ভালো করে সেদ্ধ হয়ে বেগুন। কম আঁচে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে অপেক্ষা করুন মিনিট দশেক।

চামচ দিয়ে নেড়েচেড়ে দেখুন ঠিক মতো সেদ্ধ হয়েছে কিনা বেগুন। বেগুন সেদ্ধ হয়ে গেলে টক দই, বাদাম বাদা, গরম মসলার গুঁড়া ও আস্ত কাচামরিচ দিয়ে নেড়ে ঢেকে দিন প্যান। ৫ মিনিট চুলায় রেখে রান্না করুন।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বাধিক পঠিত

To Top